FOMC মিটিংয়ের পূর্বে ডলারের প্রাইস বৃ্দ্ধি পাচ্ছে

মার্কিন কেন্দ্রীয় ব্যাংক ফেডারেল রিজার্ভের জুলাইয়ের মিটিংয়ের পূর্বে মার্কিন ডলারের প্রাইস বেড়ে ১০৬.৬৮-এর কাছাকাছি মুভমেন্ট করছে। গতকাল ডলার ডজি ক্যান্ডেল তৈরি করলেও পরবর্তীতে পুনরায় আজকের সেশনে প্রাইস বৃদ্ধি পাচ্ছে।

এর ফলে চতুর্থদিন ডলার আপট্রেন্ড অব্যাহত রেখেছে। গত সপ্তাহে প্রকাশিত মুদ্রাস্ফীতির নমনীয়তার ফলে সপ্তাহের শুরুতে ডলারের প্রাইস কমলেও শেষের দিকে চীনা ইকোনমিক মন্দাকে কেন্দ্র করে প্রাইস পুনরায় বৃদ্ধি শুরু করে। চলতি সপ্তাহে মার্কিন কেন্দ্রীয় ব্যাংকের এফওএমসি মিটিংকে কেন্দ্র করে ডলারের প্রাইস বৃদ্ধি পাচ্ছে।

আইএনজি-এর কারেন্সি অ্যানালাইসিস্ট একটি নোটে বলেন, ফেড কর্মকর্তারা মুদ্রাস্ফীতি মোকাবেলার জন্য ইন্টারেস্ট রেট বৃদ্ধির দিকে ধাবিত হতে পারে। আজকের সেশনে ইউরোর বিপরীতে মার্কিন ডলার ১.০১৭৩০ প্রাইসে অপরিবর্তনীয় রয়েছে। প্রকাশিত ইউরোজোন প্রবৃদ্ধি (জিডিপি) দ্বিতীয় প্রান্তিকে প্রত্যাশার থেকে কিছুটা কম ছিলো।

ব্রিটিশ পাউন্ড ডলারের বিপরীতে কিছুটা নমনীয় হয়ে ১.২০৭৫ প্রাইসে মুভমেন্ট করছে। আজকের সেশনে প্রকাশিত মার্কিন কনজিউমার প্রাইস ইনডেক্স ১০.১% বৃদ্ধি পেয়েছে। যা ১৯৮২ সালের ফেব্রুয়ারির পরবর্তীতে সর্বোচ্চ। যেহেতু ব্রিটিশ মুদ্রাস্ফীতি বৃদ্ধি পাচ্ছে সেক্ষেত্রে ব্যাংক অফ ইংল্যান্ড আরেকটি রেট বৃদ্ধির ইঙ্গিত দিতে পারে। ইংল্যান্ড ব্যাংক কর্মকর্তাদের থেকে এমন মন্তব্য আসলে পাউন্ড শক্তিশালী হতে পারে।  যদিও ইতিমধ্যে ইংল্যান্ড কেন্দ্রীয় ব্যাংক ইন্টারেস্ট রেট চতুর্থবার বৃদ্ধি করেছে।

Leave a Comment

Your email address will not be published.

হোম
নিউজ
ট্রেডিং স্কুল
ব্রোকার
সিগন্যাল
ক্লাব
Scroll to Top